ঢাকা ০৩:৪৬ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০২৪, ৪ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বিশ্বের মধ্যে শ্রেষ্ঠ ইসলামী দল হছে জাকের পার্টি

  • আপডেট সময় : ১০:৫৩:৫৯ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ৩ মার্চ ২০২৪
  • / ২৪৩২ বার পড়া হয়েছে
Sufibad.com - সূফিবাদ.কম অনলাইনের সর্বশেষ লেখা পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

বিশ্বের মধ্যে শ্রেষ্ঠ ইসলামী দল হছে জাকের পার্টি
বর্তমান সময়ের যোগ্য নেতা জাকের পার্টির প্রধান আমির ফয়সাল

বিশেষ প্রতিনিধঃ বিশ্বের মধ্যে দুরনীতিবিহীন ইসলামী দল হছে জাকের পারটি।আর দেশের যোগ্য নেতা হচ্ছেন,জাকের পারটির চেয়ারম্যান আমীর ফয়সাল।যে দলের চেয়ারম্যান,নেতাকর্মী ও জাকেরদের বিরুদ্ধে নেই কোন অনিয়ম, দুর্নীতির অভিযোগ।আল্লাহ-ভক্ত ইসলামী দল জাকের পার্টির প্রশংসা বহিবিশ্বে দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে।এছাড়া উরশেও দিন দিন কোটি কোটি লোক ছড়িয়ে পড়ছে।বিশ্ব জাকের মঞ্জিলের খাজা বাবার গুনাবলী লিখে এবং বলে শেষ করা যাবে না।আটরশির বিশ্ব জাকের মঞ্জিলের কারণেই বিশ্বের সমস্ত রাষ্ট্রগুলোর কাছে বাংলাদেশ নামের পরিচয়ও পাচ্ছে।বিবরণে প্রকাশ,বিশ্ব ওলী খাজা বাবা ফরিদপুরী (কুদ্দেচ্ছা ছিহিল রুহুল আযীয) আধ্যাত্মিক ওলীর সুযোগ্য পুত্র জাকের পার্টির চেয়ারম্যান আলহাজ্ব খাজা মোস্তফা আমীর ফয়সাল সাহেব বাংলার একজন আলোচিত সৎ ও নিষ্ঠাবান রাজমীতিবিদ।তার নেই কোন লোভ-লালসা।তিনি দেশ এবং দেশের দুঃখি মানুষ নিয়েই সদা-সর্বদা চিন্তিত থাকেন।

গত নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনকালে মহাজোট থেকে পীরজাদা আলহাজ্ব মোস্তয়াআমীর ফয়সালকে মন্ত্রি দেয়ার কথাও শোনা গিয়েছিল। কিন্তু জাকের পার্টির চেয়ারম্যান জনাব আমীর ফয়সাল, ব্যক্তি স্বার্থের কথা না ভেবে এবং মন্ত্রীর আশা না করে তিনি গত নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মহাজোটে যোগ না দিয়ে নির্বাচনেও তিনি অংশগ্রহণ করলেন না।এ বক্তব্য ফইদপুর জেলার নগরকান্দা উপজেলার বিশিষ্ট আসেকান জাকের মোঃ আজিজুর রহমান আজিজের।তবে জাকের পার্টির চেয়ারম্যান পীরজাদা খাজা মোস্তফা আমীর ফয়সালের মত একজন সৎ ও নিষ্টাবান নেতার প্রয়োজন ছিলো,জাতির উন্নয়নসহ এ দেশের দুর্নীতি দমন করার জন্য।সুত্রে প্রকাশ,গত নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করার জন্য তত্তাবধায়ক সরকারের পক্ষথেকেও জাকের পার্টির চেয়ারম্যান পীরজাদা খাজা মোস্তফা আমীর ফয়সাল সাহেবকে বলা হয়েছিল।তারপরেও জনাব আমীর ফয়সাল বিগত সংসদ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেননি।কারন যেহেতু নির্বাচনের পূর্বেই মহাজোট থেকে কথা উঠে ছিল যে,আমীর ফয়সালকেও মন্ত্রী দেয়া হবে। তারপর নির্বাচনে বিজয়ী হবে।তিনি তার জোগ্যতার বলে মন্ত্রী হলেও দেশবাসি হয়তো এটাই মনে করতো যে,মহাজোট-ই আমীর ফয়সালকে মন্ত্রী দিয়েছে।

 

এ কথা ভেবেই হয়তো বা জনাব আমীর ফয়সাল গত নবম জাতীয় সনহসদ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেননি।ফরিদপুর নগরকান্দার আসেকান জাকেরানদের বক্তেব্যে জানা যায়,জাকের পার্টি দল দেশের সব জেলার ৫৭৭ টি থানার গ্রাম ঘরের ইমানদার জাকেরগন জাকের পার্টিকে অধিক শক্তিশালী করে গড়ে তুলেছে।আগামী ১০ম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জাকের পার্টির পক্ষ থেকে তিনশ আসনে জাকের পার্টির প্রার্থী দিয়ে,তিনশ আসন থেকেই নির্বাচন করার চিন্তা ভাবনা রয়েছে জাকের পার্টির চেয়ারম্যান জনাব আমীর ফয়সালের।এ বক্তব্য নগরকান্দার জাকের আজিজুর রহমানসহ অনেকের।সুত্রে প্রকাশ,জাতীয় পার্টি,বিএনপি এবং আওয়ামী লীওসহ বিভিন্ন দলীয় কতিপয় মন্ত্রী এমপিদের বিরুদ্ধে দুর্নীতি আর আত্মসাতের কারণে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের আমলে গ্রেফতাহয়ে কারা বরণ করতে হয়েছিল। তবে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের আমলে গ্রেফতাহয়ে কারা বরণ করতে হয়েছিল। তবে দেশের সবকটি জেলার গ্রামগঞ্জের মানুষসহ বহিঃবিশ্বে কোথাও জাকের পার্টির চেয়ারম্যান এবং নেতা-কর্মীদের নামে নেই কোন অভিযোগ।শুধু বাংলাদেশেই নয়,পৃথীবির প্রতিটি রাষ্ট্রে প্রমানিত হয়েছে যে,জনাব আমীর ফয়সাল সত্যিকারের একজন দেশপ্রেমিক এবং সৎ ও নিষ্টাবান নেতা।

সুত্রঃ দৈনিক একুশের বানী -২৭-০১-২০১৩ ইং

আরো পড়ুনঃ

 

ব্লগটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

Discover more from Sufibad.Com - সূফীবাদ.কম

Subscribe now to keep reading and get access to the full archive.

Continue reading

বিশ্বের মধ্যে শ্রেষ্ঠ ইসলামী দল হছে জাকের পার্টি

আপডেট সময় : ১০:৫৩:৫৯ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ৩ মার্চ ২০২৪

বিশ্বের মধ্যে শ্রেষ্ঠ ইসলামী দল হছে জাকের পার্টি
বর্তমান সময়ের যোগ্য নেতা জাকের পার্টির প্রধান আমির ফয়সাল

বিশেষ প্রতিনিধঃ বিশ্বের মধ্যে দুরনীতিবিহীন ইসলামী দল হছে জাকের পারটি।আর দেশের যোগ্য নেতা হচ্ছেন,জাকের পারটির চেয়ারম্যান আমীর ফয়সাল।যে দলের চেয়ারম্যান,নেতাকর্মী ও জাকেরদের বিরুদ্ধে নেই কোন অনিয়ম, দুর্নীতির অভিযোগ।আল্লাহ-ভক্ত ইসলামী দল জাকের পার্টির প্রশংসা বহিবিশ্বে দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে।এছাড়া উরশেও দিন দিন কোটি কোটি লোক ছড়িয়ে পড়ছে।বিশ্ব জাকের মঞ্জিলের খাজা বাবার গুনাবলী লিখে এবং বলে শেষ করা যাবে না।আটরশির বিশ্ব জাকের মঞ্জিলের কারণেই বিশ্বের সমস্ত রাষ্ট্রগুলোর কাছে বাংলাদেশ নামের পরিচয়ও পাচ্ছে।বিবরণে প্রকাশ,বিশ্ব ওলী খাজা বাবা ফরিদপুরী (কুদ্দেচ্ছা ছিহিল রুহুল আযীয) আধ্যাত্মিক ওলীর সুযোগ্য পুত্র জাকের পার্টির চেয়ারম্যান আলহাজ্ব খাজা মোস্তফা আমীর ফয়সাল সাহেব বাংলার একজন আলোচিত সৎ ও নিষ্ঠাবান রাজমীতিবিদ।তার নেই কোন লোভ-লালসা।তিনি দেশ এবং দেশের দুঃখি মানুষ নিয়েই সদা-সর্বদা চিন্তিত থাকেন।

গত নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনকালে মহাজোট থেকে পীরজাদা আলহাজ্ব মোস্তয়াআমীর ফয়সালকে মন্ত্রি দেয়ার কথাও শোনা গিয়েছিল। কিন্তু জাকের পার্টির চেয়ারম্যান জনাব আমীর ফয়সাল, ব্যক্তি স্বার্থের কথা না ভেবে এবং মন্ত্রীর আশা না করে তিনি গত নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মহাজোটে যোগ না দিয়ে নির্বাচনেও তিনি অংশগ্রহণ করলেন না।এ বক্তব্য ফইদপুর জেলার নগরকান্দা উপজেলার বিশিষ্ট আসেকান জাকের মোঃ আজিজুর রহমান আজিজের।তবে জাকের পার্টির চেয়ারম্যান পীরজাদা খাজা মোস্তফা আমীর ফয়সালের মত একজন সৎ ও নিষ্টাবান নেতার প্রয়োজন ছিলো,জাতির উন্নয়নসহ এ দেশের দুর্নীতি দমন করার জন্য।সুত্রে প্রকাশ,গত নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করার জন্য তত্তাবধায়ক সরকারের পক্ষথেকেও জাকের পার্টির চেয়ারম্যান পীরজাদা খাজা মোস্তফা আমীর ফয়সাল সাহেবকে বলা হয়েছিল।তারপরেও জনাব আমীর ফয়সাল বিগত সংসদ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেননি।কারন যেহেতু নির্বাচনের পূর্বেই মহাজোট থেকে কথা উঠে ছিল যে,আমীর ফয়সালকেও মন্ত্রী দেয়া হবে। তারপর নির্বাচনে বিজয়ী হবে।তিনি তার জোগ্যতার বলে মন্ত্রী হলেও দেশবাসি হয়তো এটাই মনে করতো যে,মহাজোট-ই আমীর ফয়সালকে মন্ত্রী দিয়েছে।

 

এ কথা ভেবেই হয়তো বা জনাব আমীর ফয়সাল গত নবম জাতীয় সনহসদ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেননি।ফরিদপুর নগরকান্দার আসেকান জাকেরানদের বক্তেব্যে জানা যায়,জাকের পার্টি দল দেশের সব জেলার ৫৭৭ টি থানার গ্রাম ঘরের ইমানদার জাকেরগন জাকের পার্টিকে অধিক শক্তিশালী করে গড়ে তুলেছে।আগামী ১০ম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জাকের পার্টির পক্ষ থেকে তিনশ আসনে জাকের পার্টির প্রার্থী দিয়ে,তিনশ আসন থেকেই নির্বাচন করার চিন্তা ভাবনা রয়েছে জাকের পার্টির চেয়ারম্যান জনাব আমীর ফয়সালের।এ বক্তব্য নগরকান্দার জাকের আজিজুর রহমানসহ অনেকের।সুত্রে প্রকাশ,জাতীয় পার্টি,বিএনপি এবং আওয়ামী লীওসহ বিভিন্ন দলীয় কতিপয় মন্ত্রী এমপিদের বিরুদ্ধে দুর্নীতি আর আত্মসাতের কারণে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের আমলে গ্রেফতাহয়ে কারা বরণ করতে হয়েছিল। তবে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের আমলে গ্রেফতাহয়ে কারা বরণ করতে হয়েছিল। তবে দেশের সবকটি জেলার গ্রামগঞ্জের মানুষসহ বহিঃবিশ্বে কোথাও জাকের পার্টির চেয়ারম্যান এবং নেতা-কর্মীদের নামে নেই কোন অভিযোগ।শুধু বাংলাদেশেই নয়,পৃথীবির প্রতিটি রাষ্ট্রে প্রমানিত হয়েছে যে,জনাব আমীর ফয়সাল সত্যিকারের একজন দেশপ্রেমিক এবং সৎ ও নিষ্টাবান নেতা।

সুত্রঃ দৈনিক একুশের বানী -২৭-০১-২০১৩ ইং

আরো পড়ুনঃ